Result

বেফাক পরীক্ষার রেজাল্ট ২০২২ দেখার নিয়ম

সারা দেশে বেফাক পরীক্ষায় অনেক শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে থাকে এবং বেফাক পরীক্ষার অধীনে প্রায় ২০ হাজারের অধিক মাদ্রাসা অন্তর্ভুক্ত থাকার কারণে শিক্ষার্থীর সংখ্যা অনেক বেশি। তাই পরীক্ষা গ্রহণ করার ব্যাপারে যেমন বিভিন্ন ধরনের সিদ্ধান্ত বা ব্যবস্থাপনা পরিচালনা করা হয় ঠিক পরীক্ষার রেজাল্ট প্রকাশের ক্ষেত্রে প্রত্যেকটি খাতায় যথাযথভাবে মূল্যায়ন করে তার ফলাফল প্রস্তুত করা হয়। তাই আপনারা যারা সম্প্রতি বেফাক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছেন এবং ২০২২ সালে বেফাক পরীক্ষার ফলাফল পেতে চাইছেন তাদের জন্য আজকে আমাদের ওয়েবসাইটে এই পরীক্ষার ফলাফল দেখে নেওয়ার নিয়ম সম্পর্কে আলোচনা করা হবে।

বেফাক পরীক্ষায় অনেক শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে থাকলেও কোন ওয়েবসাইটে গিয়ে ফলাফল দেখতে হবে অথবা কিভাবে দেখতে হবে এ সম্পর্কিত তথ্য জানেন না। তাই আপনাদের কথা ভেবে আজকে আমাদের ওয়েবসাইটে বেফাক পরীক্ষার রেজাল্ট ২০২২ সম্পর্কে যেমন আলোচনা করব তেমনিভাবে এই পরীক্ষার ফলাফল দেখে নেওয়ার নিয়ম সম্পর্কে আপনাদেরকে জানিয়ে দেব।

৪৫ তম বেফাক পরীক্ষার রেজাল্ট ২০২২

আপনারা যারা বেফাক পরীক্ষার রেজাল্ট দেয়ার সঠিক নিয়ম জানতে চান এবং বিভিন্ন পরীক্ষার ফলাফল দেখে নেওয়ার ক্ষেত্রে অফিশিয়াল ওয়েবসাইট সম্পর্কে ধারণা অর্জন করতে চান তাদেরকে বলবো যে বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ এর সঠিক ওয়েবসাইটে প্রবেশ করুন এবং সেখান থেকে ফলাফল দেখে নিন। বাংলাদেশে যেসকল কওমি মাদ্রাসা রয়েছে সে সকল মাদ্রাসা সমূহ বিভিন্ন শিক্ষা বোর্ডের আওতাভুক্ত।

কওমি মাদ্রাসা নিয়ে যে সকল শিক্ষা বোর্ড গড়ে উঠছে তার ভেতরে সবচেয়ে বড় শিক্ষা বোর্ড হল বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশদের সংক্ষিপ্ত নাম হল বেফাক। এই শিক্ষা বোর্ডের অধীনে উপরেই উল্লেখ করেছে যে প্রায় 20000 মাদ্রাসা অন্তর্ভুক্ত এবং এই সকল মাদ্রাসার শিক্ষার্থীরা অর্থাৎ কওমি মাদ্রাসার শিক্ষার্থীরা বেফাক শিক্ষা বোর্ডের অধীনে প্রত্যেক বছর পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে এবং ভালো ভালো অর্জন করে।

তাই বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশের অধীনে যে সকল নিবন্ধিত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রয়েছে সে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বেফাকের প্রণয়ন করা পাঠ্যসূচি অথবা বেফাকের প্রণয়ন করার নিয়ম অনুসরণ করে প্রত্যেকটি শিক্ষার্থীকে সেই শিক্ষা ব্যবস্থার আওতায় এনে পাঠদান করা হয়। তাই এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো বিভিন্ন সময়ে উন্নত হচ্ছে এবং এখানকার পড়ালেখার মান বৃদ্ধি করার পাশাপাশি সঠিক শিক্ষক নিয়োগ করার মাধ্যমে বর্তমানে শিক্ষা ব্যবস্থা মাদ্রাসা পর্যায়ে অনেক এগিয়ে গিয়েছে।

যারা বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ এর অধীনে পড়াশোনা করেন তাদেরকে বাংলা এবং আরবি বিষয়গুলো পড়তে হয়।বেসরকারি শিক্ষা বোর্ড হওয়া সত্ত্বেও এই শিক্ষা বোর্ড প্রতিনিয়ত শিক্ষার্থীদের উন্নতি করার জন্য এবং লেখাপড়ার মান বৃদ্ধি করার জন্য যাবতীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করছেন। তবে বেফাক সম্পর্কে যদি আমরা বিস্তারিত তথ্য আলোচনা করতে চাই তাহলে আলোচনার শেষ হবে না।

বেফাক পরীক্ষার ব্যক্তিগত ফলাফল ২০২২

এখান থেকে আপনারা শুধু জেনে নিন কিভাবে বিভাগ পরীক্ষার ফলাফল দেখবেন এবং সেই ফলাফল দেখার জন্য কি কি নিয়ম অনুসরণ করতে হবে। তবে এটাও সংযুক্ত করতে চাই যে, বেফাকের অধীনে যে সকল শিক্ষার্থী পড়াশোনা করে তারা শুধু যে আরবি বিষয় নিয়ে পড়াশোনা করে বিষয়টি এমন নয়। জেনারেলের শিক্ষার্থী যে ধরনের বিষয় সমূহতে অনার্স মাস্টার্স করার সুযোগ পাই ঠিক একই নিয়ম বেফাকুল মাদারিসিল-এরাবিয়া বাংলাদেশ এর শিক্ষা বোর্ডের অধীনে পালন করা হচ্ছে এবং সেই অনুযায়ী শিক্ষার্থীদের পড়ানো হচ্ছে।

বাংলাদেশের বেফাকের যে শিক্ষা ব্যবস্থা পরিচালিত হচ্ছে সেখানে দুইটি স্তর রয়েছে। প্রথম স্তর হলো প্রাথমিক শিক্ষা যেখানে কুরআন তেলাওয়াত থেকে শুরু করে বিভিন্ন বিষয়ে পঞ্চম শ্রেণী পর্যন্ত পাঠদান করা হবে। আর দ্বিতীয় স্তরটি হলো মাধ্যমিক পর্যায়ে যেখানে শিক্ষার্থীরা তিন বছর মাধ্যমিক পর্যায়ে অর্থাৎ অষ্টম শ্রেণী পর্যন্ত পড়ালেখা করতে পারবে।

এছাড়াও পরবর্তীতে আপনারা যখন অষ্টম শ্রেণী উত্তীর্ণ হয়ে যাবেন তখন আপনাদের জন্য চারটি স্তর রয়েছে। এই চারটি স্তর হলো যে মারহালাতুস সানাবিয়াতুল। অর্থাৎ এখানে শিক্ষার্থীরা মাধ্যমিক পর্যায়ে পড়াশোনা করতে পারবে এবং নবম দশম শ্রেণীর শিক্ষার্থীদের যে পাঠদান করা হয় সেই শিক্ষা ব্যবস্থা এখানে পরিচালিত হবে। দ্বিতীয় স্তরে রয়েছে মারহালাতোস ছানাবিয়াহ্ আল উল‌ইয়া।

বেফাক পরীক্ষার রেজাল্ট ২০২২ সানাবিয়া উলইয়া

এখানে মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীরা পড়ার শোনার করার পরে উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীরা পড়াশোনা করবে এবং সাধারণ পড়ালেখার ভাষায় এটাকে একাদশ এবং দ্বাদশ শ্রেণীর পড়ালেখা বুঝিয়ে থাকে। এছাড়াও বেফাকের তৃতীয় স্তরে স্নাতক ডিগ্রী বা মারহালাতুল ফজিলত এর ডিগ্রি প্রদান করা হবে।

একজন সাধারণ পর্যায়ে শিক্ষার্থী যেমন মাস্টার্স ডিগ্রী করার সুযোগ পায় তেমনিভাবে বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ মারহালাতুল তাকমীল ডিগ্রি প্রদান করার মাধ্যমে মাস্টার্স পর্যায়ে সমও ডিগ্রি প্রদান করে। তাছাড়া মাস্টার্স ডিগ্রী করার জন্য যে ধরনের সুযোগ সুবিধা রয়েছে সেই ধরনের বিষয়গুলো এখানে রয়েছে এবং সে সকল বিষয়ে শিক্ষার্থীরা তাদের যোগ্যতা অনুযায়ী স্নাতক এবং স্নাতক উত্তর কোর্স সম্পন্ন করতে পারেন।

বেফাক পরীক্ষার রেজাল্ট দেখার নিয়ম

যাইহোক প্রতিনিয়ত বিভিন্ন স্তরের পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা গ্রহণ করা হচ্ছে এবং এই পরীক্ষার ফলাফল ওয়েবসাইট থেকে চেক করা যাচ্ছে। আপনারা যারা বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ এর পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছেন এবং এই পরীক্ষার ফলাফল দেখে নেওয়ার জন্য সঠিক নিয়ম জানতে চাইছেন তাদেরকে বলব যে অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে সেখানে আপনাদের রোল নাম্বার এন্ট্রি করলেই ফলাফল দেখে নেওয়া যাবে।

ফলাফল দেখে নেওয়ার ক্ষেত্রে আপনাদের খুব সহজেই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করতে হবে এবং ওয়েবসাইটের ঠিকানা হলো http://wifaqresult.com/ । এই ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে আপনাকে সর্ব প্রথমে আপনার পরীক্ষার মারহালা নির্বাচন করতে হবে এবং মারহেলা নির্বাচন করে আপনার পরীক্ষার রোল নাম্বার প্রদান করতে হবে। সেই সাথে আপনি কত সালের পরীক্ষার্থী এটা নির্বাচন করে যখন সাবমিট বাটনে ক্লিক করবেন তখন আপনার ফলাফল সেখানে প্রদর্শন করা হবে।

ফলাফলের সাথে আপনার ব্যক্তিগত তথ্য এবং কোন বিষয়ে কোন গ্রেড বা কত নম্বর অর্জন করতে পেরেছেন তাদেরকে নিতে পারবেন। তাই সম্প্রতি যে সকল বিষয়ে পরীক্ষা দিয়েছেন সেগুলো চেক করার জন্য অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে প্রবেশ করে তথ্য দিয়ে সাবমিট করে দেখে নিন ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে কিনা এবং ফলাফল প্রকাশিত হয়ে গেলে আপনার সেই ফলাফল অর্জন করার ক্ষেত্রে কতটা সফলতা অর্জন করতে পেরেছেন।

Al Imran

Al Imran lives in Tangail, Bangladesh. I am working as a freelancer for more than 4 years. I am very proud of being a Blogger.

Related Articles